তিন বরেণ্য শিক্ষাবিদকে জাতীয় অধ্যাপক হিসেবে নিয়োগের সুপারিশ করা হয়েছে

তিন বরেণ্য শিক্ষাবিদকে জাতীয় অধ্যাপক হিসেবে নিয়োগের সুপারিশ করা হয়েছে। রোববার (৩ জুন) শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে অনুষ্ঠিত এ সংক্রান্ত নির্বাচক কমিটির সভায় শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ তাদের নাম সুপারিশ করেন।

সভায় কমিটির সদস্য হিসেবে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত, ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্য প্রযুক্তিমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার ও ঢাবি উপাচার্য অধ্যাপক মো. আখতারুজ্জামান উপস্থিত ছিলেন।

সভা সূত্রে জানা গেছে, জাতীয় অধ্যাপক হিসেবে যাদের নাম প্রস্তাব করা হয়েছে তারা হলেন- অধ্যাপক ড. আনিসুজ্জামান, অধ্যাপক ড. জামিলুর রেজা চৌধুরী ও অধ্যাপক ড. রফিকুল ইসলাম।

মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের সচিব মো. সোহরাব হোসাইন বলেন, কমিটি তিন জনের নাম সুপারিশ করেছে। প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদনের পর রাষ্ট্রপতি জাতীয় অধ্যাপক নিয়োগ করবেন।

শিক্ষা মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, বৈঠকে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী স্থপতি ইয়াফেস ওসমান বৈঠকে মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের সচিবসহ দেশের ৯ শিক্ষাবিদের তালিকা প্রস্তাব আকারে উত্থাপন করেন। প্রস্তবকৃত তালিকায় ছিলেন- অধ্যাপক ড. আনিসুজ্জামান, অধ্যাপক ড. জামিলুর রেজা চৌধুরী, ড. একে আজাদ চৌধুরী, ড. অনুপম সেন, ডা. একে আজাদ খান, ডা. দীন মোহাম্মদ, ডা. প্রাণ গোপাল দত্ত, ড. রফিকুল ইসলাম ও বুয়েটের প্রাক্তন ভিসি অধ্যাপক ড. এম এইচ খান।

বৈঠকে নির্বাচন কমিটি অধ্যাপক ড. আনিসুজ্জামান, অধ্যাপক জামিলুর রেজা চৌধুরী ও ড. রফিকুল ইসলামের নাম সুপারিশ করে। যদিও একসঙ্গে সর্বোচ্চ চার শিক্ষাবিদকে জাতীয় অধ্যাপক হিসেবে নিয়োগ দেয়ার বিধান রয়েছে।

সর্বশেষ ২০১১ সালের জুনে পাঁচ শিক্ষাবিদকে জাতীয় অধ্যাপক হিসেবে নিয়োগ দেয়া হয়। তাদের মেয়াদ শেষ হয়েছে ২০১৬ সালের জুনে। এসব অধ্যাপকদের মধ্যে ডা. সাহেলা খাতুন ছাড়া সবাই মারা গেছেন।

উল্লেখ্য, সাধারণত পাঁচ বছর মেয়াদে জাতীয় অধ্যাপক হিসেবে নিয়োগ দেয়া হয়। তবে ক্ষেত্র বিশেষে মেয়াদ আরও দীর্ঘ হতে পারে। নীতিমালা অনুযায়ী জাতীয় অধ্যাপক পুনর্নিয়োগের ব্যবস্থাও রয়েছে।

image_printপ্রিন্ট

শেয়ার

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।